রোহিঙ্গারা সন্ত্রাসী নয় : মমতা

রোহিঙ্গারা সন্ত্রাসী নয় : মমতা
September 16 08:58 2017

অনলাইন ডেস্ক: মিয়ানমারের রাখাইন প্রদেশ থেকে বিতাড়িত রোহিঙ্গা সম্প্রদায়কে ভারতে আশ্রয় দিচ্ছে না নরেন্দ্র মোদি সরকার। তবে নির্যাতিত এ জনগোষ্ঠীর পাশে দাঁড়ালেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী ও তৃণমূল কংগ্রেস প্রধান মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

নিজের অফিসিয়াল টুইটারে তিনি জানান, নির্যাতনের শিকার হয়ে পালিয়ে আশা রোহিঙ্গা মুসলিমদের দুর্দশার ঘটনায় তিনি উদ্বিগ্ন।

শুক্রবার মমতা বলেন, রোহিঙ্গাদের সাহায্য করার ব্যাপারে জাতিসংঘ যে আবেদন রেখেছিল আমরা তাকে সমর্থন করি। আমরা বিশ্বাস করি যে, সব মানুষই সন্ত্রাসবাদী নয়। আমরা এই বিষয়টি নিয়ে সত্যিই খুব উদ্বিগ্ন।

মমতা ছাড়াও বহুজন সমাজ পার্টির (বিএসপি) প্রধান এবং উত্তর প্রদেশের সাবেক মুখ্যমন্ত্রী মায়াবতী প্রভু দাসও রোহিঙ্গা শরণার্থীদের বিষয়ে কেন্দ্রীয় সরকারকে নমনীয় হবার আহ্বান জানিয়েছেন।

রোহিঙ্গা মুসলিমদের প্রতি কেন্দ্রীয় সরকারকে মানবতার খাতিরে কঠোর মনোভাব নেয়া উচিত নয় বলে যোগ করেন তিনি।
গেলো বুধবার রাখাইনে চলমান সহিংসতার ঘটনায় নিন্দা জানিয়েছে জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদ এবং সেখানে সহিংসতা ও হত্যাকাণ্ড অবিলম্বে বন্ধ করতে মিয়ানমার কর্তৃপক্ষকে তাগিদ দিয়েছে জাতিসংঘ।

পর দিন বৃহস্পতিবার ভারতের সুপ্রিম কোর্টে মোদি সরকারের পক্ষে জানানো হয়েছে যে, রোহিঙ্গাদের মধ্যে জঙ্গি সংগঠনের প্রভাব রয়েছে। ফলে তাদের ভারতে থাকতে দেয়া নিরাপদ নয়।

ওই দিন দেশটির স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী কিরেন রিজিজু জানান, আসছে সোমবার রোহিঙ্গা ইস্যুতে সরকার নিজ অবস্থান শীর্ষ আদালতকে জানাবে।

write a comment

0 Comments

No Comments Yet!

You can be the one to start a conversation.

Add a Comment

Your data will be safe! Your e-mail address will not be published. Also other data will not be shared with third person.
All fields are required.